LPG গ্যাস offer price

কোন জিনিসের দাম একবার বাড়লে আর কমে না সহজে। একথা জানেন সবাই। তবে এমন অনেক উপায় আছে, যেভাবে আপনি ক্যাশব্যাক পেলেই ঘুরপথে কমে যাবে রান্নার LPG গ্যাস এর দাম। তবে আপনি কিভাবে পাবেন এই দারুণ ক্যাশব্যাক অফার? আজকের আলোচনায় জেনে নেওয়া যাক বিস্তারিত।

Advertisement

রান্নার LPG গ্যাস এর দাম নিয়ে চিন্তা সারা দেশবাসীর।

সরাসরি গ্যাস কিনলে অনেক টাকায় কিনতে হচ্ছে রান্নার LPG গ্যাস। তবে অনলাইনে রান্নার LPG গ্যাস বুক করলেই ক্যাশব্যাক অফার দিচ্ছে বেশ কিছু কোম্পানি। এমন অ্যাপের মধ্যে রয়েছে পেটিএম, ফোনপে, গুগলপে ইত্যাদি।

তবে আজকে যাদের কথা বলবো, তারা হচ্ছে Freecharge অ্যাপ। যদি আপনি প্রথমবারের জন্য এই অ্যাপের মাধ্যমে গ্যাস বুক করেন, তাহলে সরাসরি পেয়ে যাবেন ২০% ক্যাশব্যাক। এর মানে এখন প্রায় সমস্ত জেলাতেই রান্নার LPG গ্যাস এর দাম ১০০০ টাকার ওপরেই আছে।

Ads

সুতরাং আপনি সরাসরি পেয়ে যাবেন ২০০ টাকার থেকেও বেশি ক্যাশব্যাক। বেশ মজার এই বিষয়টি। আসুন বিভিন্ন জেলার রান্নার LPG গ্যাস এর দাম জেনে নেই। এই অফার পেয়ে যাবেন ইন্ডেন, ভারত গ্যাস, এইচপি গ্যাস অর্থাৎ এই তিনটি কোম্পানির রান্নার LPG গ্যাস বুকিং এর ক্ষেত্রেই।

Advertisement

আলিপুরদুয়ার- ১১০৬.৫০ টাকা, বাঁকুড়া- ১০৯১.৫০ টাকা, বীরভূম- ১১১০.৫০ টাকা, কোচ বিহার- ১১০৬.৫০ টাকা, দক্ষিণ দিনাজপুর- ১১৫১.৫০ টাকা, দার্জিলিং- ১১০৬.০০ টাকা, হুগলী- ১০৮২.০০ টাকা, হাওড়া- ১০৮০.৫০ টাকা, জলপাইগুড়ি- ১১০৬.৫০ টাকা।

Advertisement

এছাড়া ঝাড়গ্রাম- ১০৭১.৫০ টাকা, কালিম্পং- ১২০৮.৫০ টাকা, কোলকাতা- ১০৭৯.০০ টাকা, মালদা- ১১৫০.০০ টাকা, মুর্শিদাবাদ- ১০৯৭.০০ টাকা, নদিয়া- ১০৭৯.৫০ টাকা, উত্তর ২৪ পরগনা- ১০৭৯.০০ টাকা, পশ্চিম বর্ধমান- ১০৯২.৫০ টাকা।

Ads

এছাড়া বাকি রাজ্যগুলি অর্থাৎ পশ্চিম মেদিনীপুর- ১০৭২.০০ টাকা, পূর্ব বর্ধমান- ১০৯২.৫০ টাকা, পূর্ব মেদিনীপুর- ১০৫৫.০০ টাকা, পুরুলিয়া- ১১০৮.০০ টাকা, দক্ষিণ ২৪ পরগনা- ১০৮৭.৫০ টাকা, উত্তর দিনাজপুর- ১১৫১.৫০ টাকা দরে নভেম্বরে বিক্রি হচ্ছে রান্নার গ্যাস।

কিভাবে বুকিং করবেন?
প্রথমে আপনাকে অ্যাপটি ওপেন করে নিজের মোবাইল নম্বর দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করে নিতে হবে। এরপর যেতে হবে গ্যাস বুকিং অপশনে। সেখানে নিজের রান্নার LPG গ্যাস কোম্পানির নাম লিখতে হবে। এরপর আপনার রেজিস্টার্ড নম্বর লিখে দিতে হবে।

এরপর পেমেন্ট অপশনে যেতে হবে। নেট ব্যাঙ্কিং অথবা ডেবিট কার্ডের মাধ্যমে পেমেন্ট করতে হবে। সেক্ষেত্রে ক্যাশব্যাক পেতে GAS100-এর প্রোমোকোড লিখতে হবে। এরপর পেমেন্ট করলেই আপনি আপনার কাঙ্খিত ছাড় পেয়ে যাবে।

LPG গ্যাস সিলিন্ডার ব্যবহারে নতুন নিয়মে বেশ সমস্যায় গ্রাহকেরা। বিস্তারিত দেখুন।

রান্নার LPG গ্যাস এর ক্ষেত্রে কয়েকটি সতর্কতা যা সকলেরই মেনে চলা দরকার। তাহলেই যেকোনো বিপদ এড়ানো সম্ভব। রিফিল করা এলপিজি সিলিন্ডারের ডেলিভারি নেওয়ার সময় নিম্নলিখিত সুরক্ষা টিপসগুলি অনুসরণ করতে হবে।

নিশ্চিত করুন যে আপনি একটি অনুমোদিত ডিলারের কাছ থেকে ভরা এলপিজি সিলিন্ডার কিনছেন৷  সিল ভেঙে গেলে কখনোই সিলিন্ডার গ্রহণ করবেন না। ডেলিভারির সময় এলপিজি সিলিন্ডারে কোম্পানির সীল এবং সুরক্ষা ক্যাপটি সর্বদা চেক করুন। পরীক্ষার নির্ধারিত তারিখের জন্য দেখুন।

দিওয়ালিতে রেশন কার্ডধারীদের বিনামূল্যে রান্নার গ্যাস সিলিন্ডার দিচ্ছে সরকার, কিভাবে পাবেন?

পরীক্ষার নির্ধারিত তারিখ সিলিন্ডার স্টে প্লেটের ভিতরের দিকে চিহ্নিত করা থাকে। এটি একটি বর্ণমালা দ্বারা চিহ্নিত করা হয় যা A – মার্চ, B – জুন, C – সেপ্টেম্বর এবং D – ডিসেম্বর এবং পরীক্ষার বছর বোঝায়। (উদাহরণস্বরূপ: যদি পরীক্ষার তারিখটি D – 21 হিসাবে উল্লেখ করা হয়, তবে এর অর্থ হল 2021 সালের ডিসেম্বরের মধ্যে সিলিন্ডারটি পরীক্ষা করা দরকার।

গ্যাসের লিকেজ পরীক্ষা করুন। যদি থাকে তাহলে সিলিন্ডারের জয়েন্টগুলিতে এবং সুরক্ষা পাইপগুলিতে সাবান দ্রবণ দিয়ে ধুয়ে নতুন গ্যাস সিলিন্ডার পরিবর্তন করে নিয়ে নেবেন। লিক চেক করতে কখনই খোলা আগুন ব্যবহার করবেন না। শতর্ক থাকুন। ধন্যবাদ।
Written by Mukta Barai.

Advertisement

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *