নতুন ব্যবসার আইডিয়া, মাত্র 5 হাজার টাকায় শুরু করুন এই ব্যবসা, 10 টাকায় জিনিস কিনে 40 টাকায় বিক্রয় করুন।

সঠিক পাইকারি মার্কেট থেকে নতুন ব্যবসার আইডিয়া কাজে লাগিয়ে মাল কিনলেই ভালো লাভের মুখ দেখা সম্ভব।

বর্তমান সময়ে চাকরি পাওয়া বেশ কঠিন একটা বিষয়। তাই আজকে আপনাদের নতুন কিছু ব্যবসার আইডিয়া (Business Idea) তুলে ধরবো। কারণ পড়াশোনা শেষ করার পর নানা জায়গায় ইন্টারভিউ দেবার পরও যখন কোন কাজ না মেলে তখন পাড়া প্রতিবেশী আর আত্মীয় স্বজনের কথা বার্তায় সেই সকল মানুষের মনে জন্ম নেয় চরম হতাশা।

Advertisement

এছাড়াও অনেকের ক্ষেত্রে নিজের পৈতৃক অনেক অর্থ সম্পত্তি থাকা সত্ত্বেও সাংসারিক জীবনে প্রবেশ তথা বিবাহ বিষয়ক ক্ষেত্রে দেখা যায় নানা সমস্যা। তাই চাকরির আশায় না থেকে নতুন করে ব্যবসার আইডিয়া কাজে লাগিয়ে নেমে পড়ুন ব্যবসায়। নিজের বেকারত্বকে ঘুচিয়ে ইনকামের পথ দেখে নিন।

নতুন ব্যবসা শুরু করতে গেলে প্রথমেই দরকার সাহস আর পুঁজি। তবে ছোট করে ব্যবসা শুরু করতে গেলে পুঁজি খুব কমই লাগবে। তবে সেক্ষেত্রে ব্যবসার পেছনে সময় আর এই নতুন ব্যবসার আইডিয়া গুলিকে সঠিক ভাবে প্রয়োগ করতে হবে। এখন আধুনিক প্রযুক্তির নতুন ডিজিটাল ভারতে প্রত্যেকের হাতেই আছে নতুন প্রযুক্তির মোবাইল।

Ads

কিন্তু এই মোবাইল এর সাথে সাথেই প্রয়োজন হয় নানান রকমের আক্সেসরিস এর। তার মধ্যে থাকে মোবাইলের কভার, স্ক্রিন গার্ড, হেডফোন, চার্জার, ব্যাটারি, মেমরি কার্ড, ব্লুটুথ, আধুনিক প্রযুক্তির আরও উপকরণ। এই সকল উপকরণ গুলি মানুষের মোবাইল কেনার পর পরই দরকার পড়ে। তাই বাজারে এর চাহিদাও প্রচুর।

Advertisement

আজকের এই নতুন ব্যবসার আইডিয়া – তে আমরা জানবো যে কিভাবে এই ধরণের ব্যবসা শুরু করা সম্ভব ঘরে বসেই। আপনি খুচরো বা পাইকারি বিক্রেতা হিসেবে এই ব্যবসা শুরু করতেই পারেন। আর এই প্রোডাক্টগুলি এখন আপনি অনলাইনের মাধ্যমে বেশ কম দামে তুলে নিতে পারেন এবং তা লোকাল দোকানগুলিতে অল্প লাভেই সাপ্লাই করতে পারবেন।

Advertisement

বাড়িতে বসে না থেকে প্রতি মাসে 20 হাজার টাকা আয় করুন। খুলে দিন আধার সংশোধন কেন্দ্র।

এছাড়া আপনি ব্যবসার আইডিয়া কাজে লাগিয়ে কোলকাতার পাইকারি মার্কেট থেকেও এই মাল কিনে আনতে পারেন। আর বিক্রির জন্য নিজের ঘরের থেকেই ব্যবসা শুরু করতে পারবেন। এর জন্য ক্ষিদিরপুর মার্কেট বেশ জনপ্রিয়। তবে এখানে গিয়ে কেনা কাটা বেশ অভিজ্ঞতা নিয়েই করতে হবে। আপনি আগে থেকে অর্ডার নিয়ে তারপর একসাথেও মাল কিনে এনে সাপ্লাই করতে পারেন।

Ads

এই ধরণের ব্যবসায় কিছু কিছু আইটেমে ৪ থেকে ৫ গুণ লাভ আসতে পারে। এক্ষেত্রে আপনি COD অর্থাৎ ক্যাস অন ডেলিভারিতে মাল নিতে পারবেন। বর্তমানে ওয়্যারলেস ব্লুটুথ হেডফোন বেশ জনপ্রিয়। পাইকারি রেট হিসেবে এগুলি ২০০-২৫০ টাকায় পাইকারি কিনে তা ১২০০ থেকে ১৫০০ টাকায় বিক্রি করা হয়। এছাড়া MP3 হেডফোন মেলে ২০-২৫ টাকায় আর বিক্রি হয় ৮০-১০০ টাকায়।

মাত্র ১০ হাজার টাকায় শুরু করা এই ব্যবসা থেকে লাভ হবে ৩টি দুর্দান্ত উপায়ে।

এছাড়া মোবাইলের গ্লাস প্রটেক্টর কেনা পড়বে ২০-৪০ টাকার মধ্যে আর বিক্রি হয় ১০০-১৫০ টাকার রেঞ্জে। এছাড়া মোবাইলের চার্জার পাওয়া যায় ৪৫-৯৫ টাকার মধ্যে আর বিক্রি ২৫০-৩০০ টাকায়। এই রকম নানা ধরণের আইটেম আছে যা আপনাকে স্বপ্ন বাস্তবে রুপান্তরের পথ দেখাবে। তাহলে আর না ভেবে ইনকামের পথে চলতে শুরু করে দিন এই নতুন ব্যবসার আইডিয়া কাজে লাগিয়ে।

নিজের শ্রমকে কে যদি আপনি সঠিক পথে ব্যবহার করতে সক্ষম হন, তাহলে আপনাকে উন্নতির পথে আরও দ্রুততার সাথে এগিয়ে যেতে কেউ আটকাতে পারবে না। আরও নতুন নতুন ধরণের ব্যবসার আইডিয়া পেতে আমাদের ওয়েবসাইটের সাথে থাকার অনুরোধ জানিয়ে আজকের প্রতিবেদনের ইতি টানছি। অনেক ধন্যবাদ জানাই।
Written by Mukta Barai.

সম্পাদক

Leave a Comment

Advertisement