সরকারি সুবিধা হিসেবে বেকার ছেলে মেয়েদের প্রতি মাসে 2500 টাকা দিচ্ছে এই রাজ্য, কিভাবে পাবেন জেনে নিন।

সারা দেশের মানুষের মধ্যে বেকার সমস্যা একটি প্রধান সামাজিক অবক্ষয়ের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। আর এই কারণেই সরকারি সুবিধা হিসেবে ভাতা দিয়ে থাকে সরকার। এই বেকার সমস্যার ফলে রাজ্য তথা দেশের সাধারণ মানুষের মাথা পিছু আয় কমে যাচ্ছে দিনে দিনে। এর ফলে নেমে আসছে আর্থিক অবক্ষয়। সরকারি সুবিধার ফলে এর থেকে কিছুটা হলেও স্বস্তি পেতে চলেছেন বেকারেরা। তাদের মাসে মাসে 2500 টাকা করে এবার থেকে সরকারি সুবিধা হিসেবে মিলবে ভাতা। কিভাবে কারা পাচ্ছেন এই ভাতা, জেনে রাখতে হলে দেখুন এই প্রতিবেদন।

Advertisement

সরকারি সুবিধা সম্পর্কে জানতে দেখে নিন এই প্রতিবেদন।

প্রতি মাসে বেকারদের সরকারি সুবিধা হিসেবে দেওয়া হবে 2500 টাকা। আবেদন কীভাবে, জানুন। বাংলার মুখ্যমন্ত্রী রাজ্যের বেকার যুবক যুবতীদের জন্য চালু করেছে যুবশ্রী প্রকল্প। এখানে যুবক যুবতীদের মাসে মাসে দেওয়া হবে 1500 টাকা। বর্তমানে দুয়ারে সরকার শিবিরে যুবশ্রী প্রকল্পের ফর্ম পাওয়া যাচ্ছে। তা ফিলাপ করে খুব সহজেই রাজ্যের বেকাররা যুবশ্রী প্রকল্পের আওতায় বেকার ভাতা নিতে পারে। একই রকম একটি প্রকল্প শুরু করা হয়েছে ছত্তিশগড় রাজ্যেও।

সেখানকার মুখ্যমন্ত্রী মুখ্যমন্ত্রী ভূপেশ বাঘেল রাজ্যের বেকারদের 2,500 টাকা করে বেকার ভাতা দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছেন। উচ্চ মাধ্যমিক পাশ করা প্রতিটি ব্যক্তিকে ছত্তিশগড় সরকারের তরফে বেকারভাতা দেওয়া হবে।  ছত্তিশগড়ের মুখ্যমন্ত্রী ভূপেশ বাঘেল নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে ঘোষণা করেছেন, গত 1 এপ্রিল থেকেই রাজ্যের বেকারদের 2,500 টাকা করে বেকার ভাতা দেওয়া হচ্ছে।

Ads

এই প্রকল্পের আওতায় টাকা পাবার জন্য অবশ্য বেশ কিছু শর্ত পূরণ করতে হবে, যেগুলি সম্পর্কে নীচে লেখা হল।
1. আবেদনকারীদের ছত্তিশগড়ের বাসিন্দা হতে হবে।
2. 1 এপ্রিল, 2023 সালের হিসেবে আবেদনকারীর ন্যূনতম বয়স 18 বছর হতে হবে এবং সর্বোচ্চ বয়স 35 বছর হতে হবে।
3. প্রার্থীদের দ্বাদশ শ্রেণীর পরীক্ষা পাশ করে থাকতে হবে।

Advertisement

বিনামূল্যে রেশনের মাধ্যমে অতিরিক্ত সুবিধা পাবেন রাজ‍্যবাসী, চিনি, ময়দা সহ আর কি কি পাবেন জেনে নিন।

4. মহিলা এবং পুরুষ উভয়েই আবেদনের যোগ্য।
5. আবেদনকারীর পরিবারের মোট বার্ষিক আয় 2.5 লক্ষ বা তার কম হতে হবে।
6. আবেদনকারীদের ছত্তিশগড়ের স্ব-কর্মসংস্থান নির্দেশিকা কেন্দ্রের সাথে যুক্ত থাকতে হবে। রেজিস্ট্রেশন করার জন্য আবেদনকারীদের এমপ্লয়মেন্ট অফিসে গিয়ে নিজেদের মোবাইল নম্বর, রেশন কার্ড এবং আধার কার্ড দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করে নিতে হবে।

Advertisement

আধার প্যান লিংকের সময় বাড়লেও সমস্যা 1000 টাকাতেই, কি ভাবছেন! সমাধান দেখুন।

সাথে নিজস্ব ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থাকার প্রয়োজন। এছাড়াও নথি হিসেবে লাগবে দশম এবং দ্বাদশ শ্রেণির রেজাল্ট, পরিবারের ইনকাম সার্টিফিকেট এবং অবশ্যই ছত্তিশগড়ের বাসিন্দা হওয়ার সার্টিফিকেট। পাশাপাশি পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ছবি লাগবে। এপ্রিল মাসের যেকোনো দিন আবেদন করলেই 2500 টাকা করে ভাতা মিলবে সরকারের তরফে।
Written by Parna Banerjee.

Ads

Leave a Comment

Advertisement