স্বল্প পুঁজির 7 টি চমৎকার ব্যবসার আইডিয়া, মাসিক আয় 30 থেকে 40 হাজার টাকা গ্যারান্টি।

চাকরীর সাথে সাথে চমৎকার ব্যবসার আইডিয়া এর নতুন ব্যবসা করতে অবসরে নিযুক্ত হতে পারেন আপনিও।

চমৎকার ব্যবসার আইডিয়া গুলো কাজে লাগিয়ে ছোট হোক বা বড়, ব্যবসা শুরু করে বসে না থেকে নিজের পায়ে দাড়ানোই বুদ্ধিমানের কাজ। বিশ্বের সেরা অন্যতম ধনকুবের বিল গেটস এর কথায়, “আপনি যদি গরীব হয়ে জন্ম নেন তবে সেটা আপনার দোষ নয় কিন্তু আপনি যদি গরীব হয়ে মারা যান তবে সেটা আপনার ভুল”। অর্থাৎ ঘরে অযথা পেছনের কথা না ভেবে কিছু করা শুরু করাটাই সব থেকে ভালো।

Advertisement

ব্যবসার একটি প্রধান এবং অন্যতম উল্লেখযোগ্য দিক হল যে চাকরীর মতো এক্ষেত্রে আপনাকে ১০ টা থেকে ৫ টার ধরাবাধা সময়সীমার ডিউটি করতে হয় না। সুতরাং এখানে আপনার কাছে থাকছে কাজ করার সম্পূর্ণ স্বাধীনতা। তবে হ্যাঁ, এটা ঠিক যে আপনি যতটা পরিশ্রম করবেন তেমন হিসেবেই সফলতা আয়ের ক্ষেত্রে দেখতে পারবেন। নতুন নতুন ও চমৎকার ব্যবসার আইডিয়া হিসেবে এই 7টি ব্যবসার আইডিয়া থেকে যেকোনো একটি পছন্দ ও সুবিধা মতো ব্যবসা পছন্দ করে নেমে পড়ুন আর সহজেই আয় করুন মোটা টাকা।

এদিকে ওদিকে তাকালে অনেক ব্যবসাই আপনার চোখে পড়বে তবে আপনাকে আপনার নিজের ব্যবসা আসেপাশে বিচার করেই বেছে নিতে হবে। কারণ এই ব্যবসার আইডিয়া গুলির মধ্যে একটা জিনিস সাধারণ আছে, যে আপনাকে ব্যবসার উপযুক্ত স্থান বেছে নিতে হবে পদ্ধতি মেনে। তার সাথে সাথে ব্যবসা সম্পর্কে ভালো মন্দ, লাভ লসের সম্ভাবনা প্রভৃতি জানতে হবে। সাথে কাজে লাগাতে হবে সৃজনশীল চিন্তাধারা এবং দক্ষতাকে। তাহলে চলুন জেনে নেওয়া যাক, কম টাকা বিনিয়োগে কোন কোন ব্যবসা করা যেতে পারে।

Ads

সেরা কয়েকটি ব্যবসার আইডিয়া
প্রথমেই যেই ব্যবসার আইডিয়া জানবো তা হল অনলাইন খাবার ডেলিভারির ব্যবসা। বর্তমানে অনেক পরিবার আছে যাদের নিউক্লিয়ার ফ্যামিলি। সাথে দুজনেই কোন না কোন কাজের সাথে যুক্ত। সময়ের অভাবে নিজেদের রান্না করার সময়ের খুব অভাব। এছাড়া আছে বহু স্টুডেন্ট মেস যেখানে থেকে ছাত্র বা ছাত্রীরা পড়াশোনা করেন। এই সকল ক্ষেত্রে খাবার হোম ডেলিভারি করা এখনকার সময়ে একটি উপযোগী ব্যবসার আইডিয়া। এক্ষেত্রে আপনাকে খুব বেশি পুজি নিয়ে নামার দরকার পড়বে না।

Advertisement

এরপরে আরও একটি ব্যবসার আইডিয়া জানবো তা হল ফলের রস বা ফল বিক্রির স্টল। বর্তমান যুগে সকলেই স্বাস্থ্য সচেতন। তাই শরীরকে সুস্থ রাখতে ফলের গুরুত্ব জানেন সবাই। বাজারে ফলের বেশ চাহিদাও আছে তা সে লোকাল ফল হোক বা বিদেশি। সঠিক জায়গা নির্বাচন করে নানান ফল যেমন- আপেল, আঙ্গুর, ন্যাস্পাতি, লেবু, পেয়ারা, ড্রাগন ফ্রুট ইত্যাদি বিক্রির স্টল করতে পারলে স্বল্প পুঁজিতে ভালো লাভের মুখ দেখা যাবে।

Advertisement

স্বল্প বিনিয়োগেই Business শুরু, মাসিক আয় করুন 30000 টাকা।

এবারে আরও একটি ব্যবসার আইডিয়া নিয়ে বলবো যা হল অনলাইনে বেকারির ব্যবসা। অনেকেই আছেন যারা কেক, কুকিস বেক করতে ভালবাসেন। ভাবছেন এই ব্যবসা শুরু করবেন। কিন্তু কত টাকা বিনিয়োগ করতে হবে তা জানেন না। মাত্র ৮ হাজার টাকার মধ্যেই এই ব্যবসা স্টার্ট-আপ হিসেবে শুরু করা সম্ভব। সোশ্যাল মিডিয়ার পেজ বা প্রোফাইলের মাধ্যমে ক্রেতার অ্যানিভার্সারি হোক বা জন্মদিন, যেকোনো অনুষ্ঠানে কেক, কুকিস ইত্যাদি পৌঁছে দিতে পারবেন। খাবারের মান ভালো হলে ধীরে ধীরে ব্যবসায় লাভের মুখও দেখতে পারবেন খুব তাড়াতাড়ি।

Ads

পরবর্তী একটি নতুন ব্যাবসা হলো বিউটিশিয়ান। মহিলাদের পাশাপাশি এখন পুরুষেরাও হয়ে উঠেছেন সুন্দরের উপাসক। তাই এই বিউটিশিয়ানের কোর্সের মাধ্যমে প্রশিক্ষণ নেওয়া থাকলে খুব সহজেই এই ব্যবসা শুরু করতে পারবেন। আর তা না হলে আপনি সরকারি বা বেসরকারি নানা সংস্থা থেক ৩ মাস বা ৬ মাসের একটি ভালো বিউটিশিয়ান কোর্স করে নিজের ঘরে বা অনলাইনে যোগাযোগ করে এই ব্যবসা করতে পারেন। বাড়িতে গিয়ে ফেসিয়াল, ম্যানিকিওর, পেডিকিওর ইত্যাদি প্রাথমিক পরিষেবা দিতে পারেন।

ব্যবসা করতে টাকা দিচ্ছে সরকার, এই ব্যবসা একবার শুরু করলে, সাফল্য ঘরে আসবে।

অনলাইন শিক্ষকতা করা হল আরও একটি নতুন এবং উপযোগী পন্থা। নিজের ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে শিক্ষকতা মূলক ভিডিও আপলোড করে ভালো পরিমাণ টাকা রোজগার করতে পারবেন। উপরন্তু এই কাজটি বাড়িতে বসেই শুধুমাত্র ইন্টারনেটের মাধ্যমেই করা সম্ভব। এক্ষেত্রে আপনার দরকার হবে মাত্র একটি কম্পিউটারের। এছাড়া অনলাইন শিক্ষকতার জন্য তৈরি বিভিন্ন পোর্টাল বা অ্যাপে শিক্ষক হিসেবে নিজের নাম নথিভুক্ত থাকলে সহজেই শিক্ষকতা করে রোজগার করা সম্ভব।

তবে নতুন নতুন এই সব ব্যবসার আইডিয়া এর মধ্যে আপনার আশেপাশে কোনটি বেশি উপযোগী তা আপনাকেই খুঁজে নিতে হবে। খুব ভালো করে স্টাডি করে প্ল্যান বানাতে হবে। ওপরের ব্যবসা ছাড়াও আপনি কলম তৈরির ব্যবসা, মোমবাতি তৈরির ব্যবসা, মোবাইলের অ্যাক্সেসরিস বিক্রি, মাশরুম চাষ ইত্যাদি আরও ব্যবসা চালু করতে পারেন। প্রতি ক্ষেত্রেই আপনাকে শ্রম দিতে হবে আর সাথে রাখতে হবে স্থিরতা। আরও খবর পেতে ওয়েবসাইট নোটিফিকেশন Allow করতে ভুলবেন না। ধন্যবাদ। Written by Mukta Barai.

Leave a Comment

Advertisement