Low Invest Business – স্বল্প পুঁজির ব্যবসা শুরু করে মাসে আয় করুন মোটা টাকা, পদ্ধতি দেখে সিদ্ধান্ত নিন খুব তাড়াতাড়ি।

Low Invest Business করতে পারলেই মাসে আয় হবে অনেক টাকা। যেখানে বাড়িতে বসে বসে অযথা চিন্তা করে সময় নষ্ট করে নেই কোন লাভ। কিন্তু যদি আপনি এই ব্যবসার সাথে যুক্ত হয়ে সঠিক ভাবে কাজে মন দিতে পারেন, তাহলে কোন লস তো হবেই না। বরং ব্যবসা এগোবে ঝড়ের গতিতে। তবে যেকোনো ব্যবসা করতে গেলেই দরকার পুঁজি আর সাহস, তাহলে সামান্য পরিশ্রমেই হয়তো আপনি পৌঁছে যাবেন আপনার টার্গেট থেকেও আরও দূরে। চলুন তবে জেনে নেওয়া যাক, কীভাবে শুরু করা যাবে এই Low Invest Business!

Advertisement

Low Invest Business – এর আইডিয়া কাজে লাগাতে পারলে লাখ লাখ টাকা আয়।

পড়াশোনা শেষ করার পরে চাকরির খোঁজ করার সাথে সাথেই এখন অনেকে নিজের ব্যবসা শুরু করতে চান। কিন্তু শুরুতেই প্রচুর অর্থ বিনিয়োগ করা অনেকের জন্যই বেশ অসুবিধাজনক হয়ে ওঠে। তবে খুব কম বিনিয়োগেও ব্যবসা তথা Low Invest Business করে, তা থেকে বেশ ভালো লাভ করা সম্ভব। এই প্রতিবেদনে এমনই এক Low Invest Business- এর আইডিয়া নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে। আমুলের ফ্র্যাঞ্চাইজি নিয়ে ব্যবসা শুরু করুন, যা একটি Low Invest Business. রোজগার করুন লক্ষাধিক টাকা।

বড়ো কোম্পানিগুলির ফ্র্যাঞ্চাইজি গ্রহণের মাধ্যমে খুব স্বল্প পুঁজিতেই ব্যবসা দাঁড় করানো যায়। এর মধ্যে আমুলের ফ্র্যাঞ্চাইজি নিয়ে সহজেই মাসে লাখ টাকা আয় করতে পারেন। এই ফ্র্যাঞ্চাইজির সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য বিষয় হল আমুল কিন্তু অন্যান্য কোম্পানির মতো তার ফ্র্যাঞ্চাইজির কাছ থেকে রয়্যালটি বা লাভের শেয়ার নেয় না।

Ads

আমুলের ফ্র্যাঞ্চাইজি নেবার জন্য আপনাকে ২ লক্ষ টাকার কাছাকাছি বিনিয়োগ করতে হবে। তবে ফ্র্যাঞ্চাইজি পাবার জন্য আপনাকে কোম্পানি কর্তৃক নির্ধারিত কিছু শর্ত পূরণ করতে হবে।
শর্তাবলী:- প্রধান সড়কে বা বাজারে একটি দোকান থাকা হলো ফ্র্যাঞ্চাইজি পাবার অন্যতম প্রধান শর্ত।
দোকানের আকার নির্ভর করবে আপনি কেমন ফ্র্যাঞ্চাইজি নিতে চান তার উপর।

Advertisement

ফ্র্যাঞ্চাইজির প্রকার:-
আমুল কোম্পানিটি ২ ধরনের ফ্র্যাঞ্চাইজি অফার করে।
এক, আমুল আউটলেট, আমুল রেলওয়ে পার্লার এবং আমুল কিয়স্ক।
দুই, আমুল আইসক্রিম স্কুপিং পার্লারের ফ্র্যাঞ্চাইজি।
এই দুটি ফ্র্যাঞ্চাইজি নেবার খরচ এবং দোকানের সাইজও আলাদা। আমুলের আউটলেটের জন্য দোকানে ১৫০ বর্গফুট জায়গা থাকা উচিত। আবার, আইসক্রিম পার্লারের জন্য এই ন্যূনতম স্থান ৩০০ বর্গফুট হওয়া উচিত।

Advertisement

আবার ঋণের উপর সুদ বাড়ালো এই 2টি ব্যাংক, গ্রাহকদের মাথায় হাত! বিস্তারিত দেখুন।

জায়গা সংক্রান্ত এই শর্ত দুটি পূরণ না হলে আমুল আপনাকে ফ্র্যাঞ্চাইজি দেবে না। আরও বিস্তারিত তথ্যের জন্য আপনি আমুলের ওয়েবসাইটটি ভিজিট করতে পারেন। এবারে খরচ নিয়ে জেনে নেওয়া যাক। আপনি যদি একটি আমুল আউটলেট খুলতে চান, তাহলে কোম্পানিকে একবার অ-ফেরতযোগ্য নিরাপত্তা হিসাবে ২৫,০০০ টাকা দিতে হবে। এছাড়াও সংস্কারের জন্য আপনার কাছ থেকে ১ লাখ টাকা এবং সরঞ্জামের জন্য ৭৫ হাজার টাকা নেওয়া হবে। মোটামুটি ভাবে একটি আমুল আউটলেট খুলতে আপনার ২ লক্ষ টাকা খরচ হবে৷

Ads

আবার, আমুল আইসক্রিম পার্লারের জন্য খরচ অনেকটাই বেশি। এখানে কোম্পানির তরফে আপনার কাছ থেকে ৫০,০০০ টাকা নিরাপত্তা নেওয়া হবে। সেক্ষেত্রে আরও ৪ লক্ষ টাকা সংস্কারের জন্য এবং ১.৫০ লক্ষ টাকা সরঞ্জামের জন্য নেওয়া হবে৷ এবারে জানা যাক আয় কেমন হবে। আপনার আউটলেটটি যদি বাজারে বা একেবারে রাস্তার ধারে হয়ে থাকে, তবে প্রতি মাসে কমপক্ষে ৫-১০ লাখ টাকার জিনিস বিক্রি হতে পারে। আমুল কমিশনের ভিত্তিতে প্রোডাক্ট দেয়।

দিনে মাত্র 5 ঘন্টা এই ব্যবসা করুন, বাকি সময় আরাম, ইনকাম মাসে 50 হাজার থেকে 1 লাখ।

কমিশন হিসেবে আমুলের দুগ্ধজাত প্রোডাক্টের জন্য ২.৫ থেকে ১০ শতাংশ কমিশন অফার করে। অন্যদিকে, আইসক্রিমে ২০ শতাংশ কমিশন দেওয়া হয়। আইসক্রিম পার্লারে আইসক্রিম ছাড়াও বিক্রি হয় পিজ্জা, স্যান্ডউইচ ও হট চকলেটসহ বিবিধ প্রোডাক্ট। এগুলিতে দেওয়া হয় ৫০ শতাংশ কমিশন। এমন আরও ব্যবসার আইডিয়া সম্পর্কে জানতে দেখতে থাকুন আমাদের প্রতিবেদন। ধন্যবাদ।
Written by Parna Banerjee.

সম্পাদক

Leave a Comment

Advertisement