Govt Employee – হোলির আগে ফিটমেন্ট ফ্যাক্টর, বড়ো সুখবর পেতে চলেছেন সরকারি কর্মীরা। বিস্তারিত দেখুন।

Govt Employee – দের জন্য বিরাট সুখবর আসতে চলেছে খুব শীঘ্রই। এক্ষেত্রে কেন্দ্রে চলছে সপ্তম বেতন কমিশন। আর পশ্চিমবঙ্গে চলছে ষষ্ঠ বেতন কমিশন। প্রতি বেতন কমিশনে নতুন করে সরকারি কর্মীদের বেতন কাঠামো নতুন করে তৈরি করা হয় আর সেই অনুসারে তাদের বেতন নির্ধারণ করা হয়ে থাকে। কেন্দ্রে বর্তমানে মহার্ঘ ভাতা মিলছে ৩৮ শতাংশ, সেই নিরিখে পশ্চিমবঙ্গে মিলছে মাত্র ৩ শতাংশ। তবে এবারে বেতন বৃদ্ধি সংক্রান্ত বিরাট সুখবর আসতে চলেছে।

Advertisement

কেন্দ্রের Govt Employee -দের বেতন বৃদ্ধি হতে চলেছে প্রায় ৪৪ শতাংশ।

পশ্চিমবঙ্গে Govt Employee – দের বেতন কাঠামো অনুসারে পঞ্চম বেতন কমিশনে বকেয়া মহার্ঘ ভাতার ক্ষেত্রে প্রচুর টাকা বকেয়া যা কোলকাতা হাইকোর্টের রায়ে এবং SAT এর রায়ে পরিষ্কার। আর ষষ্ঠ বেতন কমিশনে কেন্দ্রের থেকে পশ্চিমবঙ্গ পিছিয়ে আছে ৩৫ শতাংশে। অথচ কেন্দ্রের Govt Employee – দের সপ্তম বেতন কমিশনে বেতন প্রাপ্তি হলেও বর্তমানে ফিটমেন্ট ফ্যাক্টর নিয়ে শুরু হয়েছে পর্যালোচনা।

সেক্ষেত্রে নতুন করে অষ্টম বেতন কমিশন নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে। হতে পারে ৪৪% বেতন বৃদ্ধি।

কেন্দ্রে প্রতি বছর ২ বার করে বাড়ে মহার্ঘ ভাতা Govt Employee – দের। এবারে আবারও সুখবর কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীদের জন্য। সপ্তম বেতন কমিশনের পর এবার মোদী সরকার খুব তাড়াতাড়ি অষ্টম বেতন কমিশন বসতে চলেছে। এর ফলে আগামী বছরেই কেন্দ্রীয় কর্মীদের বেতন ৪৪ শতাংশ বেড়ে যেতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

Ads

সপ্তম বেতন কমিশনের অধীনে, কেন্দ্রীয় সরকারের কর্মচারীদের সর্বনিম্ন বেতন ১৮,০০০ টাকা দেওয়া হয়। সরকার এই বেতন নির্ধারণের জন্য ফিটমেন্ট ফ্যাক্টর ব্যবহার করে। ফিটমেন্ট ফ্যাক্টর যখন চালু করা হয়েছিল, তখন অনেকেই এর অনেক বিরোধিতা করলেও, তৎকালীন অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলির বিশ্বাস ছিল যে কেন্দ্রীয় কর্মচারীদের বেতন নির্ধারণের জন্য কিছু নতুন স্কেল ব্যবহার করা উচিত।

Advertisement

বাম্পার মোবাইল রিচার্জ সেরা অফার, এক রিচার্জে 4 গুন সুবিধা, কম দামে সেরা প্ল্যান।

তার কারণেই বেতন নির্ণয় করার জন্য ফিটমেন্ট ফ্যাক্টর প্রয়োগ করা হয়েছিল। বৈঠকের পরে, সপ্তম বেতন কমিশনে, ফিটমেন্ট ফ্যাক্টর নির্ধারণ করা হয়েছিল ২.৫৭ গুণ, এর পরে কর্মীদের বেতন ১৪.২৯ শতাংশ বেড়েছে এবং এই বৃদ্ধির কারণে, কর্মচারীদের সর্বনিম্ন বেতন ১৮,০০০ টাকা হয়েছে। এবার আসতে চলেছে অষ্টম বেতন কমিশন।

Advertisement

এর অধীনে, ফিটমেন্ট ফ্যাক্টর ৩.৬৮ গুণ হতে পারে, ফলে কর্মীদের বেতন ৪৪.৪৪ শতাংশ বাড়তে পারে। অর্থাৎ, কর্মচারীদের ন্যূনতম বেতন সরাসরি ১৮,০০০ টাকা থেকে একেবারে ২৬,০০০ টাকা হয়ে যেতে পারে। এখনও পর্যন্ত কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে অষ্টম বেতন কমিশন সংক্রান্ত কোনো ধরনের প্রস্তাব পেশ করা হয়নি।

Ads

বকেয়া ডিএ এর দাবীতে পশ্চিমবঙ্গে এবার পূর্ণ দিবস ধর্মঘট, অফিস আদালতের সাথে এবার বন্ধ দোকান বাজার।

তবে ধারণা করা হচ্ছে ২০২৪ সালে অষ্টম বেতন কমিশন চালু করতে পারে এবং ২০২৬ সালে এটি কার্যকর হতে পারে। প্রসঙ্গত ২০২৪ সালে ভোট আছে। তাই ভোট ব্যাঙ্কের ওজন বাড়াতে দেশের কর্মচারীদের অষ্টম বেতন কমিশন উপহার দিতেই পারেন মোদী সরকার।
Written by Parna Banerjee.

সম্পাদক

Leave a Comment

Advertisement