Satellite Internet – ভারতে চালু হলো স্যাটেলাইট ইন্টারনেট। বিনামূল্যে ইন্টারনেট দেবে Jio Space Fiber.

এবার সকলে পেতে চলেছেন Satellite Internet এর দৌলতে সস্তায় ইন্টারনেট পরিষেবা! জিও আনল নতুন জিও স্পেসফাইবার (Jio Space Fiber), দেশজুড়ে দেওয়া হবে ইন্টারনেট সংযোগ।
বর্তমানে ভারতের সবচেয়ে জনপ্রিয় এবং বৃহৎ টেলিকম কোম্পানি হল রিলায়েন্স জিও। সারা দেশের বিভিন্ন প্রান্তে এই কোম্পানির নেটওয়ার্ক সংযোগ বিস্তারলাভ করেছে।

Advertisement

Jio Satellite Internet Jio Space Fiber Plans

আমরা বহু মানুষই এই কোম্পানির সিমকার্ড, জিও ওয়াইফাই, জিও ফাইবার (Jio Fiber) ইত্যাদি ব্যবহার করে থাকি। সম্প্রতি এই কোম্পানির পক্ষ থেকে এমন এক ঘোষণা করা হয়েছে যাতে বলা হয়েছে যে এবার থেকে দেশের বিভিন্ন প্রত্যন্ত এবং দুর্গম জায়গায় পৌঁছে যাবে রিলায়েন্স জিওর নেটওয়ার্ক সংযোগ (Satellite Internet) এবং তাও আবার অত্যন্ত সস্তায়। শুক্রবার দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী উপস্থিতিতে রিলায়েন্স জিও একটি নতুন প্রযুক্তি চালু করেছে। এর নাম হল জিও স্পেস ফাইবার (Jio Space Fiber).

কোম্পানির তরফ থেকে এই সংকল্প নেওয়া হয়েছে যে নতুন পরিষেবার মাধ্যমে প্রতিদিন দেশের প্রায় দেড় লক্ষ মানুষকে ইন্টারনেট পরিষেবা প্রদান করা হবে। অর্থাৎ জিওর Satellite Internet এর এই নতুন পদক্ষেপের মাধ্যমে নেটওয়ার্ক জগতে এক বিপ্লব ঘটতে চলেছে। যার কারণে এখন মাথায় চিন্তার হাত পড়েছে বিশ্বের অন্যতম জনপ্রিয় নেটওয়ার্ক সংস্থা এলন মাস্কের স্টার লিংক (Elon Musk Starlink) কোম্পানির।

Ads

এর আগের মাসেই গণেশ চতুর্থীর দিন কোম্পানির একটি ইভেন্টে মুকেশ আম্বানি ঘোষণা করেছিলেন জিওর তরফে এয়ার ফাইবার লঞ্চ করার কথা। তখন তিনি জানান যে এই এয়ার ফাইবার চালু করার মাধ্যমে জিও নেটওয়ার্কের সংযোগ মোট ২০০ মিলিয়ন মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কোম্পানি। আর ঠিক তার এক মাস পরই জিও স্পেস ফাইবার (Satellite Internet) চালু করে আবারো কেরামতি দেখালো জিও।

Advertisement

জিও কোম্পানির রিপোর্ট অনুযায়ী বর্তমানে দেশের ৫০ কোটি মানুষ জিও মোবাইল নেটওয়ার্কের অধীনে রয়েছে। ১০ মিলিয়ন মানুষ জিও ফাইবার এর সুবিধা ভোগ করে থাকেন। এই নেটওয়ার্ক ১.৫ মিলিয়ন কিলোমিটার এলাকা জুড়ে বিস্তৃত। তবে নতুন এই স্পেস ফাইবার চালু করার পর দেশের বিভিন্ন দুর্গম অঞ্চলগুলিতেও নেটওয়ার্ক সংযোগ (Satellite Internet) নিরবচ্ছিন্ন থাকবে। যা জিওর প্রসার আরো বৃদ্ধি করবে।

Advertisement

জিও এয়ারফাইবার এর বিবরণ

বর্তমান কালে বিশ্বে ফাইভ-জি নেটওয়ার্কের আগমন ঘটেছে। আমাদের দেশেও এই নেটওয়ার্ক অত্যন্ত জনপ্রিয়। কারণ এই নেটওয়ার্কের আল্ট্রা হাই স্পিড ইন্টারনেট পরিষেবা অত্যন্ত দ্রুততার সঙ্গে অনলাইন কাজগুলিকে সম্পন্ন করে। এই নেটওয়ার্কের উপর ভিত্তি করেই তৈরি হয়েছে নতুন এই জিও স্পেস ফাইবার। মূলত এটি হল একটি ওয়ারলেস ইন্টারনেট (Satellite Internet) পরিষেবা ডিভাইস। এর আগে যে জিও ফাইবার অনেকে ব্যবহার করতেন সেগুলি কেবিল দ্বারা সংযুক্ত করতে হতো।

Ads
Google Pay loan (গুগল পে লোন)

Jio Space Fiber Plans

কিন্তু এখানে সম্পূর্ণ ব্যবস্থাটি ওয়ারলেস কমিউনিকেশন পদ্ধতিতে হবে। পাশাপাশি ফাইভ-জি নেটওয়ার্ক ব্যবহার করার কারণে আপনার বাড়ি হোক কিংবা অফিস যে কোন স্থানে আলট্রা হাই স্পিডে ইন্টারনেট পরিষেবা আপনি ব্যবহার করতে পারবেন। জিও কোম্পানির কর্ণধার মুকেশ আম্বানি জানিয়েছেন এই নতুন স্পেস ফাইবার (Jio Space Fiber) এর মাধ্যমে ইন্টারনেট পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত হতে চলেছেন দেশ এবং দেশের বাইরেও বহু মানুষ।

আরও পড়ুন, মাত্র 20000 টাকায় মিলছে Bajaj Pulsar বাইক। অফার টু হুইলারে।

জিও স্পেস ফাইবারের জন্য গ্রাহকদের একটি স্যাটেলাইট ডিশ এবং একটি ওয়াই-ফাই রাউটারের প্রয়োজন হবে। স্যাটেলাইট ডিশটি স্যাটেলাইট (Satellite Internet) থেকে সিগন্যাল গ্রহণ করবে এবং ওয়াই-ফাই রাউটার সেই সিগন্যাল ল্যাপটপ, মোবাইল ফোন এবং অন্যান্য ডিভাইসে পাঠানোর কাজ করবে।

আরও পড়ুন, কালীপূজোর আগে রিচার্জ করলে 1 বছরের বৈধতা পাবেন সামান্য খরচে, সীমিত সময়ের অফার।

তবে মুকেশ আম্বানি জানিয়েছেন প্রারম্ভেই কিন্তু সারা দেশ জুড়ে এই সুবিধা প্রদান করা হবে না। এক্ষেত্রে রিলায়েন্স জিও তাদের নতুন স্যাটেলাইট ভিত্তিক (Satellite Internet) ব্রডব্যান্ড পরিষেবা ‘জিও স্পেস ফাইবার’ ভারতের চারটি প্রত্যন্ত অঞ্চলে চালু করেছে। এই অঞ্চলগুলির মধ্যে রয়েছে গুজরাটের গির জাতীয় উদ্যান, ছত্তিশগড়ের কোরবা, ওড়িশার নবরংপুর এবং আসামের ওএনজিসি জোরহাট। এখন পরীক্ষা-নিরীক্ষা চলবে। যদি এই উদ্যোগ সাফল্য পায়, তখন সারা দেশের সমস্ত প্রত্যন্ত এবং দুর্গম অঞ্চলগুলিতে চালু করা হবে স্পেস ফাইবারের পরিষেবা।
Written by, Nabadip Saha.

সুখবর বাংলা

Leave a Comment

Advertisement